ডিজিটাল মার্কেটিং ক্যারিয়ার স্টেপস

ডিজিটাল মার্কেটিং নিয়ে  ক্যারিয়ার গড়ার সিদ্ধান্ত একটি সময় উপযোগী পদক্ষেপ। কারণ আমরা একটি ডিজিটাল বিশ্বে বাস করি। মার্কেটিং বাজেট দিন দিন ডিজিটাল বিজ্ঞাপনের দিকে চলে যাচ্ছে এবং মানুষ ট্রাডিশনাল মার্কেটিং চ্যানেলগুলি থেকে দূরে সরে যাচ্ছে। আজকের ব্যাবসায়িক বাজার অনলাইন ভিত্তিও হওয়ার কারণে  ব্যবসা প্রতিষ্ঠান তাদের অনলাইন ভিজিবিলিটি বাড়াতে এক্সপার্ট ডিজিটাল মার্কেটের হায়ার করে থাকেন। এই কাজ করার জন্য আপনার ফিজিক্যালি অফিস না করলেও চলবে, আপনি রিমোট জব এর মাধ্যমে এই কাজগুলো করে দিতে পারেন।

ডিজিটাল মার্কেটিং নিয়ে ক্যারিয়ার গড়ার ১০টি স্টেপস

  • ডিজিটাল মার্কেটিং এর বেসিক বিষয়গুলো জানা
  • নিজস্ব ওয়েবসাইট দিয়ে প্র্যাক্টিস শুরু করুন
  • SEO সম্পর্কে জানুন
  • Google এর মার্কেটিং ফান্ডামেন্টাল সম্পর্কে জানুন
  • ফেসবুক এডস সম্পর্কে ধারণা নিন
  • Google Analytics-সম্পর্কে জানুন
  • ফ্রিল্যান্সার হিসাবে একটি ডিজিটাল মার্কেটিং এর কাজ পাওয়ার চেষ্টা করুন
  • কাজ শুরু করার আগে ইন্টার্নশিপ করুন
  • মার্কেটিং এর নতুন আপডেট সম্পর্কে থাকুন এবং শিখতে থাকুন
  • ডিজিটাল মার্কেটিং টুলসগুলো সম্পর্কে পড়াশোনা করুন
  • ডিজিটাল মার্কেটিং এর বেসিক বিষয়গুলো জানা
    ডিজিটাল মার্কেটিং একটি ব্রড নিশ। ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে চাইলে প্রথমেই এর বেসিক জিনিস গুলো সম্পর্কে জানা উচিত। যেমন- ডিজিটাল মার্কেটিং এর কম্পোনেন্টস, ইন্টারনেট মার্কেটিং প্রসেস, ইন্টারনেট মার্কেটিং চ্যানেল, অনলাইন মার্কেটিং প্রমোশনাল মেথড ইত্যাদি। 

নিজস্ব ওয়েবসাইট দিয়ে প্র্যাক্টিস করা 

ওয়েবসাইট ছাড়া আসলে ডিজিটাল মার্কেটিং চিন্তা করা অসম্ভব। শুধুমাত্র থিওরি জানলেই ডিজিটাল মার্কেটিং এ কাজ করতে পারবেন না, আপনাকে মেজার করাও শিখতে হবে। সেক্ষেত্রে আপনি মার্কেটিং এর বিভিন্ন টার্মস ও অন্নান্য বিষয়গুলো প্রাক্টিক্যালি করতে চাইলে আপনাকে ওয়েবসাইট এর মাধ্যমে প্র্যাক্টিস করতে হবে।

SEO সম্পর্কে জানা ও বোঝা  

ডিজিটাল মার্কেটিং এর এভারগ্রীন একটি টার্ম হলো SEO বা সার্চ ইঞ্জিনে অপ্টিমাইজেশন। বিষয়টি গুগল এ অর্গানিক রাঙ্ক নিয়ে কাজ করা হয়ে থাকে। এই ক্যাটাগরিতে আপনি অনেকগুলো স্ট্রাটেজি সম্পর্কে জানতে হবে। যেমন-

  • কীওয়ার্ড রিসার্চ 
  • কনটেন্ট রাইটিং 
  • অন-পেজ এসইও 
  • অফ-পেজ এসইও 
  • মেজারমেন্ট 

গুগল এর মার্কেটিং ফান্ডামেন্টাল 

আপনি যদি গুগল এ মার্কেটিং ফান্ডামেন্টাল লিখে সার্চ করেন তাহলে গুগল এর মার্কেটিং ফান্ডামেন্টাল এর বেশ কয়েকটি কোর্স পাবেন যা সম্পূর্ণ ফ্রি। এখন থেকে আপনি মার্কেটিং এর অনেক টপিকস সম্পর্কে জানতে পারবেন। চাইলে আপনি কোর্স শেষে করে তাদের রিকোয়ারমেন্ট ফিল আপ করে আপনি সার্টিফিকেট পেতে পারেন। নিচের লিংক টি ভিজিট করুন-

https://learndigital.withgoogle.com/digitalgarage/course/digital-marketing 

ফেইসবুক এডস 

অনালাইন মার্কেটিং এর আরও একটি জনপ্রিয় মিডিয়া হচ্ছে ফেইসবুক। বর্তমানে এর ব্যাবহারকারীর সংখ্যা প্রায় ২.৯৩৪ বিলিয়ন এর উপরে। অনেক বেশি ইউজার থাকার কারণে মার্কেটিং চ্যানেল হিসেবে বেশ জনপ্রিয়। তাই আপনি মার্কেটিং এ স্কিল ডেভেলপমেন্ট করতে চাইলে ফেইসবুক এডস একটি ভালো মাধ্যম হতে পারে। 

গুগল এনালিটিক্স

গুগল এনালিটিক্স একটি ডাটা এনালিটিক্যাল প্লাটফর্ম, এটা গুগল এর একটি ফ্রি টুলস। মার্কেটিং এ মূলত ট্রাফিক এনালিসিস, ট্রাফিক আকুইজিশন, ট্রাফ সোর্স, ডেমোগ্রাপিক, মার্কেটিং কস্ট সব ট্রাফিক এর বিভিন্ন ডাটা নিয়ে কাজ করা হয়।

ফ্রীলান্সার হিসেবে কাজ করুন-

ক্যারিয়ার শুরুর জন্য ফ্রীলান্সার হিসেবে কাজ শুরু করতে পারেন। ইন্টারনেট এ অনেক মার্কেটপ্লেস আছেন যেখানে ডিজিটাল মার্কেটিং নিয়ে জব পোস্ট হয়ে থাকে, আপনি সেখানে ফ্রীলান্সার হিসেবে প্রোফাইল খুলে নিতে পারেন। তবে প্রথমদিকে স্বল্প বাজেট এর কাজ টার্গেট করে শুরু করাটা বাঞ্চনীয়, কারণ এখানে আপনি সুযোগ পেলে সেই সুযোগ অবশ্যই কাজে লাগানো উচিত। 

ইন্টার্নশিপ করুন 

ডিজিটাল মার্কেটিং এর লাইভ প্রজেক্টে কাজ করতে পারলে আপনার অনেক ধারণা ক্লিয়ার হয়ে যাবে। সেক্ষেত্রে আপনি চাইলে কোনো প্রতিষ্ঠানের সাথে ইন্টার্ন করতে পারবেন। এতে আপনি প্রপার স্কিল ডেভেলপমেন্ট করার সুযোগ পাবেন। 

Leave a Reply